পাকিস্তানের প্রেসিডেন্টের সঙ্গে হাত মেলালেন মোদী

আন্তর্জাতিক শীর্ষ
প্রতিবেশী দুটি দেশ পাকিস্তান ও ভারত। সম্পর্ক হওয়ার কথা মধুর। কিন্তু সেটা দা-কুমড়োর। তবে সাংহাই সহযোগিতা সংগঠন এসসিও-এর সম্মেলনে পাকিস্তানের নতুন প্রেসিডেন্টের সঙ্গে হাত মেলালেন মোদী। এর আগে বিভিন্ন আন্তর্জাতিক মঞ্চে পাকিস্তানি রাষ্ট্রপ্রধানের ভারতের প্রধানমন্ত্রীর অনেকবার দেখা হয়েছে। কিন্তু মুখ ফিরিয়ে নিয়েছেন মোদী। তবে এবার হলো পুরো উল্টোটা- মুখে সৌজন্যের হাসি, গুরুত্বপূর্ণ কথা আর করমর্দন করলেন দুই বৈরী দেশের সরকার প্রধান। এছাড়া নতুন পাক রাষ্ট্রপ্রধান মামনুন হুসেনের সাথে সন্ত্রাসবাদ মোকাবেলায় ভারত পাকিস্তান গুরুত্বপূর্ণ ঘোষণা পত্রে স্বাক্ষর করল।
গতকাল প্রথমবারের মত চীনের কিনদাওয়ে এসসিও সম্মেলনে অংশগ্রহণ করে ভারত। বিদেশী মন্ত্রকদের মতে, নয়াদিল্লীর জন্যে বিষয়টি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। প্রধানতঃ চীনের উদ্যোগে ভারতের মতো পাকিস্তানও যুক্ত হয়েছে এসসিওতে।  নতুন দুই সদস্য রাষ্ট্র ভারত ও পাকিস্তানকে স্বাগত জানায় চীনা প্রেসিডেন্ট। তিনি বলেন, ‘ঠাণ্ডা যুদ্ধের মানসিকতা আমাদের বর্জন করতে হবে। একটি দেশের নিরাপত্তার যুক্তিতে অন্য রাষ্ট্রকে ঝুঁকিতে ফেলা যাবে না’।  ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী বলেন, আমাদের নিজেদের নিরাপত্তার স্বার্থেই আমাদের পাশাপাশি দেশগুলোর সঙ্গে সম্পর্ক ভালো রাখতে হবে।  মোদীর এই ভাষ্যের সঙ্গে করমর্দন চিরশত্রু দুই দেশের সম্পর্কে একটু হলেও বরফ গলা শুরু করবে বলে মনে হচ্ছে।

-ফেসবুক কমেন্টস-

মন্তব্য