বিক্ষোভ সহ ক্লাস-পরীক্ষা বর্জনের ঘোষণা

শিক্ষা শীর্ষ

আন্দোলনকারীদের ওপর হামলা ও কোটা বাতিলের প্রজ্ঞাপন জারির দাবিতে আজ রবিবার বেলা ১১টায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের রাজু ভাস্কর্যের সামনে বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন করবে বাংলাদেশ সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদ। কর্মসূচির অংশ হিসেবে তারা দেশের সব কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয় বেলা ১১টা হতে ১টা পর্যন্ত সব ক্লাস ও পরীক্ষা বন্ধেরও ঘোষণা দেয়।

গতকাল শনিবার বেলা ১১টায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) কেন্দ্রীয় গ্রন্থাগারের সামনে এক সংবাদ সম্মলনে পরিষদের আহ্বায়ক হাসান আল মামুন এই ঘোষণা দেন। তিনি বলেন, কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ে আন্দোলনকারীদের ওপর অতি উত্সাহী কিছু সন্ত্রাসী হামলা চালায়। এছাড়া রংপুরে শান্তিপূর্ণ মানববন্ধন কর্মসূচিতে পুলিশ বাধা দেয়। এসব ঘটনার প্রতিবাদ ও সংসদে প্রধানমন্ত্রীর প্রদত্ত ঘোষণার প্রজ্ঞাপন জারির দাবিতে আমরা দেশের প্রতিটি কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয়ে বিক্ষোভ পালন করবো। বিক্ষোভ চলাকালে বেলা ১১টা থেকে দুপুর ১টা পর্যন্ত সব ক্লাস-পরীক্ষা বন্ধ থাকবে।

যুগ্ম আহ্বায়ক নূরুল হক নূর বলেন, প্রধানমন্ত্রীর ঘোষণার ৩১ দিন পার হলেও এখনো প্রজ্ঞাপন জারি হয়নি। সরকারের প্রতিনিধিদের সঙ্গে আলোচনার সময় তারা আমাদেরকে বারবার আশ্বাস দিয়েছিলেন, ৭ মে’র মধ্যে প্রজ্ঞাপন জারি হবে। কিন্তু আজ (গতকাল) ১২ মে হলেও আমাদের কাঙ্ক্ষিত প্রজ্ঞাপন দেওয়া হয়নি। আমরা ছাত্র সমাজ আর আন্দোলন করতে চাই না। আমাদের সঙ্গে দেওয়া প্রতিশ্রুতি কেন রক্ষা করা হচ্ছে না? সরকারের বিরুদ্ধে কোনো ধরনের ষড়যন্ত্র করা হচ্ছে না উল্লেখ করে নূর বলেন, কোটা থাকবে কি-না এর জন্য একটি কমিটি গঠন করা হয়েছে। এটি বাংলার ছাত্র সমাজের সঙ্গে একটি প্রহসন। প্রধানমন্ত্রী জাতির সামনে স্পষ্ট ঘোষণার পর প্রজ্ঞাপনের জন্য কোনো কমিটির দরকার নেই।

Loading...

-ফেসবুক কমেন্টস-

মন্তব্য