এটিএম বুথে লেনদেনে বাড়তি সতর্কতার নির্দেশ: বাংলাদেশ ব্যাংক

অর্থনীতি শীর্ষ
ঈদের সময় প্রয়োজন হয় নগদ টাকার। তবে এ সময়ে গ্রাহকদের জন্য ভোগান্তির অন্যতম উপসর্গ হয়ে দাঁড়ায় ব্যাংকের এটিএম বুথগুলো। বুথে টাকা না থাকা, কার্ড আটকে যাওয়া, টাকা বের না হলেও ব্যালেন্স কাটা, অতিরিক্ত চার্জ আদায় ও চোর-ডাকাতের কবলে পড়াসহ নানা ধরনের ভোগান্তিতে পড়েন গ্রাহকরা। লেনদেনে বুথনির্ভর গ্রাহকরা অনেক সময় টাকা না পেয়ে তাদের ঈদের আনন্দই মাটি হয়ে যায়। তাই গত কয়েক বারের ধারাবাহিকতায় এবারও ঈদের ছুটির সময় এটিএম বুথে পর্যাপ্ত টাকা রাখা ও নিরাপত্তা নিশ্চিত করার নির্দেশ দিয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক।
গতকাল এ বিষয়ে একটি পরিপত্র জারি করে সংশ্লিষ্টদের কাছে পাঠিয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংকে পেমেন্ট সিস্টেম ডিপার্টমেন্ট। গ্রাহকরা যাতে নিরবচ্ছিন্নভাবে লেনদেন করতে পারেন সেজন্য এটিএম, পস, অনলাইন ই-পেমেন্ট গেটওয়ে ও মোবাইল ফাইন্যান্সিয়াল সার্ভিসের ক্ষেত্রে করনীয় বিষয় আলাদা আলাদা করে উল্লেখ করা হয়েছে ওই পরিপত্রে। এটিএম (অটোমেটেড টেলার মেশিন) এর ক্ষেত্রে বলা হয়েছে, সার্বক্ষনিক এটিএম সেবা নিশ্চিত করা। এটিএমে কোন কারিগরি সমস্যা দেখা দিলে দ্রুততম সময়ের মধ্যে নিরসনের ব্যবস্থা করা। বুথে পর্যাপ্ত টাকা সরবরাহ নিশ্চিত করা এবং এটিএমে সার্বক্ষনিক পাহারাদারের সতর্ক অবস্থানসহ অন্যান্য নিরাপত্তা নিশ্চিত করা। পসের (পয়েন্ট অব সেল) ক্ষেত্রেও সার্বক্ষনিক সেবা নিশ্চিত করতে বলা হয়েছে।
আর জাল জালিয়াতি রোধে মার্চেন্ট ও গ্রাহককে সচেতন করার কথা বলা হয়েছে। অনলাইন ই-পেমেন্ট গেটওয়েতে কার্ডভিত্তিক কার্ড নট প্রেজেন্ট লেনদেনের ক্ষেত্রে এডিশনাল ফ্যাক্টর অথেনটিকেশন (দুইস্তর বিশিষ্ট অথেনটিকেশন) ব্যবস্থা চালু রাখার কথা বলা হয়েছে। মোবাইল ফাইন্যান্সিয়াল সার্ভিস (এমএফএস) প্রদানকারী সকল ব্যাংক ও তাদের সাবসিডিয়ারি প্রতিষ্ঠানগুলো সার্বক্ষনিক সেবা দেওয়ার কথা বলা হয়েছে। এছাড়া যে কোন অংকের লেনদেন মোবাইলের এসএমএস অ্যালার্টের মাধ্যমে গ্রাহকদের জানানোর কথাও বলা হয়েছে। ইলেকট্রিক পদ্ধতির সকল ধরণের পরিশোধ সেবার ক্ষেত্রে গ্রাহকদের সতর্কতা অবলম্বনের জন্য গণমাধ্যমে প্রচার প্রচারণার কথা বলা হয়েছে। কোন অবস্থায় যেন গ্রাহক হয়রানির শিকার না হন তার ব্যবস্থা করা এবং সার্বক্ষনিক হেল্প লাইন সাপোর্ট দেওয়ার কথা বলা হয়েছে।
সংশ্লিষ্ট বিভাগ সূত্রে জানা গেছে, এটিএম বুথগুলোতে পর্যাপ্ত নিরাপত্তা নিশ্চিত করে যথেষ্ট পরিমাণ টাকা সরবারহের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে ব্যাংকগুলোকে। ঈদ-উল-ফিতর উপলক্ষে বেশকয়েকদিন ব্যাংক বন্ধ থাকায় এটিএম বুথগুলোর উপর চাপ বাড়বে। ব্যাংকগুলোর কার্যক্রম বন্ধ থাকায় জনসাধারণের আর্থিক লেনদেনের সুবিধার্থে নিরাপত্তা নিশ্চিত করে বুথগুলোতে পর্যাপ্ত টাকা রাখতে ব্যাংকগুলোকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। একইসঙ্গে অন্যান্য মাধ্যমের লেনদেনেও বিশেষ সতর্কতা অবলম্বন করতে বলা হয়েছে।

-ফেসবুক কমেন্টস-

মন্তব্য